#FreeLegalServices #AccessToJustice
গার্হস্থ্য হিংসা ও প্রতারণার শিকার ধর্মনগর মহকুমার অন্তর্গত চন্দপুর গ্রামের আরও এক গৃহবধূ। বিবাহের দুইবছর পর কন্যা সন্তানের জন্মের পর থেকেই শুরু হয় অমানবিক শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন। নির্যাতনের মাত্রা এতটাই ভয়াবহ ছিল যে বাধ্য হয়ে নির্যাতিতাকে বহুবার থানা ও অভিভাবকদের সাহায্য নিতে হয়। কিন্তু প্রতারক স্বামী বার বার মিথ্যে প্রতিশ্রুতি দিয়ে নির্যাতিতাকে আইনের আশ্রয় নেয়া থেকে বিরত রাখে।
নির্যাতক স্বামী ধর্মনগর মহকুমা শাসকের কার্যালয়ে কর্মরত একজন করণিক এবং নিজ স্ত্রীর সরলতা ও দুর্বলতার সুযোগ নিয়ে অবৈধ সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে ধর্মনগর মহকুমা শাসকের কার্যালয়ে কর্মরত অপর এক মহিলা সহকর্মীর সাথে এবং বিগত কিছুদিন আগে প্রথম স্ত্রীকে না জানিয়ে একান্ত গোপনে বিবাহ করে নেয় নিজ অফিসের ঐ মহিলা সহকর্মীর সাথে।
অবশেষে নির্যাতনের স্বীকার মহিলা নিরুপায় হয়ে আজ ১৯শে মার্চ ২০২০ইং গোপীকা কান্ত দত্তের সাথে প্রয়োজনীয় আইনি সহায়তা পাওয়ার জন্য যোগাযোগ করেন
গোপীকা কান্ত দত্ত ঘটনার খবর পেয়ে পীড়িতার সাথে যোগাযোগ করে প্রয়োজনীয় আইনি সহায়তা প্রদানের আশ্বাস দেন।